রোলেক্স: বিশ্বের সবচেয়ে দামি ঘড়ির গল্প

157
0

সময় সবচেয়ে মূল্যবান আর সময়ের জানান যে দেয়, তার একটি যথার্থ মূল্য থাকতে হয় বৈকি। দক্ষ কারিগরি, রুচিশীল ডিজাইন আর সময়ের সাথে তাল মিলিয়ে চলার বৈশিষ্ট্য নিয়ে বিশ্ববিখ্যাত আর সব থেকে দামি ঘড়ির তালিকায় আছে ‘রোলেক্স।’ কখনো কী ভেবেছেন, রোলাক্স এতো বিখ্যাত কীভাবে হলো? আর, এমন আকাশছোঁয়া দাম কেন এর? আজ, এই প্রশ্নগুলোর উত্তর জানতে পারবেন।  

ইতিহাসের শুরু

রোলেক্সের ইতিহাস, এর প্রতিষ্ঠাতা হ্যান্স উইলসডর্ফের দূরদর্শী চেতনার সাথে অঙ্গাঙ্গীভাবে জড়িত। ১৯০৫ সালে মাত্র ২৪ বছর বয়সে, হ্যান্স উইলসডর্ফ লন্ডনে টাইমপিস বিতরণে বিশেষজ্ঞ একটি কোম্পানি প্রতিষ্ঠা করেন। তিনি হাতঘড়ির স্বপ্ন দেখতেন। তখন ততটা প্রচলিত না হলেও, তিনি জানতেন হাতঘড়িও একদিন রুচিশীল ও নির্ভরযোগ্য হতে পারে। 

হ্যান্স উইলসডর্ফ Image source: Wikimedia.commons

অয়েস্টার (Oyester) উদ্ভাবন 

“খুব জটিল, ভঙ্গুর, অভিযোজনে দুর্বল”- হাতঘড়িটি এডওয়ার্ডিয়ান ইংল্যান্ডে সংশয়ের সাথে দেখা হয়েছিল। তবুও তার অন্তর্দৃষ্টি, দৃঢ় বিশ্বাস এবং সীমা পাড়ি দেওয়ার সংকল্পের উপর নির্ভর করে; হ্যান্স উইলসডর্ফ তার রোলেক্স ঘড়ি- ‘অয়েস্টার পারপেচুয়াল’-কে জলরোধী টাইমপিসের আর্কিটাইপ হিসাবে প্রতিষ্ঠা করার সাহসী উদ্দেশ্য অর্জন করতে সক্ষম হন। ১৯২৬ সালে বিশ্বের প্রথম জলরোধী হাতঘড়ি হিসাবে, এটি আধুনিক টাইমপিসের বিকাশে অগ্রণী ভূমিকা পালন করেছে৷ 

প্রথম অয়েস্টার জলরোধী ঘড়ি। Image source: A Blog to Watch

রোলেক্স সমুদ্রের গভীর থেকে সর্বোচ্চ পর্বতমালার চূড়া, বাতাসে এবং রেসিং সার্কিটে সবচেয়ে চরম পরিস্থিতিতেও তাদের নির্ভরযোগ্যতা প্রমাণ করেছে। 

পার্পেচুয়াল বা স্থায়ী গতিবিধি 

১৯৩১ সালে, রোলেক্স একটি পার্পেচুয়াল বা স্থায়ী গতিবিধির রটারসহ বিশ্বের প্রথম স্ব-ওয়াইন্ডিং মেকানিজম আবিষ্কার করে, পেটেন্ট করে। এটি আজও প্রতিটি আধুনিক স্বয়ংক্রিয় ঘড়ির কেন্দ্রবিন্দুতে রয়েছে। 

পার্পেচুয়াল বা স্থায়ী গতিবিধির রটার। Image source: A Blog to Watch

স্যার ম্যালকম ক্যাম্পবেল

১৯৩০-এর দশকে, রোলেক্স এবং বিশ্বের অন্যতম দ্রুততম চালক স্যার ম্যালকম ক্যাম্পবেল একত্র হয়েছিলেন। ৪ সেপ্টেম্বর ১৯৩৫ সালে, ব্লুবার্ড গাড়ি এবং একটি রোলেক্স ঘড়ি পরে; এই ‘গতির রাজা’ উটাহর বনেভিল সল্ট ফ্ল্যাটে ৩০০ মাইল প্রতি ঘণ্টায় একটি স্থল গতির রেকর্ড স্থাপন করেন। 

স্যার ম্যালকম ক্যাম্পবেল ও রোলেক্স। Image source: rolexencyclopedie.nl

রোলেক্স উৎপাদন প্রক্রিয়া

প্রতিটি ধাপে উৎকর্ষতা আর নিখুঁত কাজের পরিচয় দিতে পর্যাপ্ত সময় এবং দক্ষতার প্রয়োজন। রোলেক্স ঘড়ি যত্নের সাথে তাদের তৈরির দক্ষতা প্রজন্মের পর প্রজন্মে ছড়িয়ে দেয়। ঐতিহ্যগত পদ্ধতি থেকে আধুনিক প্রযুক্তি, রোলেক্সের প্রক্রিয়াতে একটু দৃষ্টি দিলেই বোঝা যাবে তাদের শ্রেষ্ঠত্বের কারণ। 

প্রোটোটাইপ তৈরি

রোলেক্সে, বহু-দক্ষ প্রোটোটাইপ নির্মাতারা, প্রথমবারের মতো নতুন ডিজাইন করা উপাদান এবং ঘড়ির আকার এবং কার্যকারিতা দেয়। মডেলার, প্রোডাকশন পরিকল্পনাকারী, প্রকৌশলী বা হরোলজিস্ট: সবাই এই প্রক্রিয়ার সাথে জড়িত। রোলেক্সের ঘড়ি নির্মাতারা ডিজাইন থেকে শুরু করে সম্পূর্ণ প্রক্রিয়াতেই সাথে থাকে। 

ধাতুর ব্যবহার 

রোলেক্সের ব্যবহৃত ধাতুগুলির মধ্যে একটি হল ‘অয়েস্টারস্টিল।’ এই বিশেষ ইস্পাতটি ক্ষয় প্রতিরোধী এবং পালিশ করার সময় একটি ব্যতিক্রমী চকচক অর্জন করে। 

রোলেক্সের অয়েস্টারস্টিল। Image source: Millenary Watches

মেটাল ফাউন্ড্রি

২০০০ এর দশকের গোড়ার দিকে, রোলেক্স তার নিজস্ব ফাউন্ড্রি স্থাপন করে। শুধুমাত্র খাঁটি স্বর্ণের খাদ ব্যবহার নিশ্চিত করতে। 

সিরামিক

সিরামিক ব্যবহারে দক্ষতার ফলে রোলেক্স তার ঘড়িগুলোকে Cerachrom বা সেরাক্রম বেজেল বা এই উচ্চ প্রযুক্তির উপাদান থেকে তৈরি বেজেল সন্নিবেশ দিয়ে সজ্জিত করেছে। 

রোলেক্সের Cerachrom বা সেরাক্রম বেজেল। Image source: MONTREDO

ডায়াল মেকিং

রোলেক্স ঘড়ির ডায়ালগুলোকে যে রং এবং টেক্সচার অলংকৃত করে; তা উচ্চ-স্তরের পদার্থবিদ্যা, সূক্ষ্ম বিচার এবং বিশুদ্ধ রসায়নের মিশ্রণের ফলাফল। 

পলিশিং

পলিশিং রোলেক্স ঘড়ি তৈরির সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ধাপগুলোর একটি, যা ঘড়ির মেটালিক অংশকে অতুলনীয় চূড়ান্ত দীপ্তি প্রদান করে। এবং এটি সম্পূর্ণ হাতে করা হয়। 

ট্রাইবোলজি

রোলেক্সের ট্রাইবোলজিস্টদের নিবেদিত দল তাদের দক্ষতা ও কাজের মাধ্যমে, রোলেক্সের নির্ভরযোগ্যতা, নির্ভুলতা এবং স্বাচ্ছন্দ্য বাড়িয়ে চলছে। 

ট্রাইবোলজি। Image source: Rolex.com

মণি-সেটিং ও ডায়াল

কঠোরভাবে নির্বাচনের পর, মূল্যবান পাথরগুলো রত্ন-সেটারদের কাছে ন্যস্ত করা হয়। চূড়ান্ত পলিশ ক্ষুদ্র ধাতব সেটিংকে উজ্জ্বল করে, পাথরের তীব্র ঝলকানিকে হাইলাইট করে। এই ধাপটি নির্দিষ্ট হীরার ডায়ালগুলোতে প্রায় ৩০০০ বার পর্যন্ত পুনরাবৃত্তি হয়। 

রোলেক্সের জেম সেটিং। Image source: rolex.com

মান পরীক্ষা

রোলেক্স এর নির্ভুলতা, নির্ভরযোগ্যতা এবং দৃঢ়তার গ্যারান্টি দেওয়ার জন্য পরীক্ষা এবং প্রোটোকল তৈরিতে অগ্রণী ভূমিকা পালন করেছে। ‘সুপারলেটিভ ক্রোনোমিটার সার্টিফিকেশনের’ মাধ্যমে, নিজস্ব পরীক্ষাগারে এবং নিজস্ব মানদণ্ড অনুযায়ী পরীক্ষা করা হয়। 

রোলেক্সের ভিন্নতা

রোলেক্স হল বিভিন্ন ক্ষেত্রের বিশেষজ্ঞদের একটি সম্মিলিত স্থান। সোনার ধাতুর ঢালাই থেকে মেশিনিং, ফিনিশিং এবং বিচ্ছিন্ন অংশগুলোর সমাবেশ, কেস, ডায়াল এবং ব্রেসলেটের উপাদান, সেইসাথে রত্ন-সেট-প্রতিটি ধাপে তাদের কারিগরি দক্ষতা চোখে পড়ে। রোলেক্সের নিজস্ব প্রশিক্ষণ কেন্দ্র জেনেভাতে, কর্মীদের প্রশিক্ষণ প্রদান এবং শিক্ষানবিশদের নির্দেশনা দেওয়া হয়। 

সময়ের সাথে তাল মিলিয়ে চলা

প্রায় এক শতাব্দী আগে, হ্যান্স উইলসডর্ফ বিশ্বের সবচেয়ে সুনির্দিষ্ট এবং নির্ভরযোগ্য হাতঘড়ি তৈরি করেছিলেন। তার আপোষহীন মনোভাবের জন্য, আজও ব্র্যান্ডটি প্রযুক্তির সাথে তাল মিলিয়ে সময়ের সাথে তাদের উন্নতি করছে। 

নতুন রোলেক্স। Image source: MONOCHROME

একটি জীবন্ত গবেষণাগার

হ্যান্স উইলসডর্ফের জন্য, পৃথিবীও ছিল একটি জীবন্ত গবেষণাগার। ১৯৩০-এর দশকে, রোলেক্স তার ঘড়িগুলো বাস্তব জীবনের বিভিন্ন পরিস্থিতিতে পরীক্ষা করে। অভিযাত্রীরা বিশ্বের দুর্গম স্থানে কিছু চরম অবস্থায় ঘড়িগুলো ব্যবহার করেছে। সময়ের সাথে, রোলেক্স অভিযাত্রীদের সম্পূর্ণ সমর্থন দিয়ে পরিবেশ রক্ষায়ও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে আসছে।    

রোলেক্স অ্যাওয়ার্ড এবং মেন্টর ও প্রোটেজি আর্টস ইনিশিয়েটিভ

যারা বড় বড় চ্যালেঞ্জ সাহস ও দৃঢ় বিশ্বাসের সাথে মোকাবেলা করেছে, সেসব অসাধারণ ব্যক্তিদের সম্মান জানাতে; Oyster-এর ৫০তম বার্ষিকীতে ‘রোলেক্স অ্যাওয়ার্ড’ চালু করা হয়েছে। ‘রোলেক্স মেন্টর এবং প্রোটেজি আর্টস ইনিশিয়েটিভ’ ২০০২ সালে, প্রতিভাবান শিল্পীদের উৎসাহ দেওয়ার জন্য প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল। 

কেন রোলেক্স এত ব্যয়বহুল?

যদিও রোলেক্স ঘড়ির মূল্য অনেকের কাছে অপ্রয়োজনীয়ভাবে বেশি মনে হতে পারে। কিন্তু, এটি হওয়ার অনেক কারণ রয়েছে। রোলেক্সের উৎপাদন প্রক্রিয়া প্রচুর শ্রম এবং সময়সাপেক্ষ। ব্যবহৃত উপকরণগুলি সর্বোচ্চ মানের, তাই এর দাম বেশি হওয়াই স্বাভাবিক। 

যত্নের সাথে তৈরি

রোলেক্স ঘড়ির অংশগুলো, সবচেয়ে অভিজ্ঞ ঘড়ি নির্মাতারা সম্পূর্ণরূপে হাতে সংযুক্ত করে। প্রতিটি উপাদান নির্বাচন করা হয় আলাদাভাবে এবং সবচেয়ে ভালো উপাদান নিশ্চিত করা হয়। 

দীর্ঘমেয়াদের নিশ্চয়তা 

আপনি যদি এমন একটি হাতঘড়ি চান, যেটা দীর্ঘ সময় আপনার সাথে থাকবে তবে রোলেক্স হতে পারে চমৎকার সঙ্গী। আর্দ্রতা, তাপমাত্রা, উচ্চতা বা নড়াচড়ার যে কোনো পরিবর্তন কিছু সময়ের জন্য অত্যন্ত ক্ষতিকর হতে পারে-কিন্তু তা রোলেক্সের জন্য নয়। এর আরেকটি বৈশিষ্ট্য হল জল প্রতিরোধ। কিছু ঘড়ি ৩০০ মিটার পর্যন্ত গভীরতা সহ্য করতে সক্ষম।   

গুণগত মানের সাথে আপোষ না করা

যদিও অনেক লোক কেবল সংগ্রহের অংশ হিসাবে বা দৈনন্দিন ব্যবহারের জন্য রোলেক্স ঘড়ি কেনে। কিন্তু, বিনিয়োগ হিসাবেও ঘড়ি কেনা এখন অনেক সাধারণ বিষয়। এক্ষেত্রে, রোলেক্স ঘড়ি আদর্শ। 

আজ, রোলেক্স ১০০টিরও বেশি প্রধান আন্তর্জাতিক ইভেন্টের সাথে যুক্ত রয়েছে। ‘দ্য চ্যাম্পিয়নশিপ,’ ‘উইম্বলডন’ থেকে শুরু করে ‘লা বিয়েনালে ডি ভেনেজিয়াতে’ আর্কিটেকচার প্রদর্শনী এবং ‘অস্কার’ অনুষ্ঠান। ব্র্যান্ডটির ১৪০টিরও বেশি প্রশংসাপত্র রয়েছে, যার মধ্যে টেনিস কিংবদন্তি রজার ফেদেরার, সামুদ্রিক জীববিজ্ঞানী সিলভিয়া আর্লে এবং চলচ্চিত্র নির্মাতা মার্টিন স্কোরসেস রয়েছেন৷ 

তবে রোলেক্স সবসময় এতো ব্যয়বহুল ছিল না। ১৯৫০-এর দশকে আজকের মতো এত ব্যয়বহুল ছিল না। সময়ের সাথে সাথে, গুণমানের উন্নতির সাথে দামও বেড়েছে। শুরু থেকে, রোলেক্স সবসময় তার ঘড়ি প্রস্তুতকারকদের জ্ঞানের দ্বারা দুর্দান্ত স্টোর সেট করেছে এবং তাদের প্রশিক্ষণের গুণগতমান নিশ্চিত করেছে। ফলস্বরূপ, আজ ব্র্যান্ডটি ঘড়ি তৈরির শিল্পে বিখ্যাত এবং সবচেয়ে মূল্যবান হয়ে উঠেছে।

 

Feature Image: gearpatrol.com
References: 

01. Rolex watch. 
02. Why-are-Rolex-so-expensive? 

মন্তব্য করুন

অনুগ্রহ করিয়া এখানে আপনার মন্তব্য লিখুন!
নুগ্রহ করিয়া এখানে আপনার নাম লিখুন!